টানা দ্বিতীয় দিনের মতো তাইওয়ানের আকাশসীমায় ঢুকে পড়েছে চীনের যুদ্ধবিমান।

Samia RahmanSamia Rahman
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ০৫:৫৪ PM, ১১ সেপ্টেম্বর ২০২০

 

এ ধরনের সামরিক মহড়া তাইওয়ানের জনগণের মনে বিদ্বেষ তৈরি করছে বলে বিবৃতি দেয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়, প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় আবারও চীনা কমিউনিস্ট পার্টির প্রতি আহ্বান জানাচ্ছে, বারবার আঞ্চলিক শান্তি ও স্থিতিশীলতা নষ্ট যেন আর না করে তারা।

চীনা বিমানগুলোকে দ্রুত নজরদারিতে আনতে সক্ষম হয় তাইওয়ান। মন্ত্রণালয় যোগ করেছে, ‘শত্রুর চলাফেরা’ দ্রুত ট্র্যাক করতে পেরেছিলেন তারা।
মন্তব্য জানতে চাইলে চীনের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের কাছ থেকে তাৎক্ষণিক সাড়া পাওয়া যায়নি।

তাইওয়ান বারবার অভিযোগ করেছে যে গণতন্ত্রপন্থি দ্বীপকে নিজেদের নিয়ন্ত্রণে নিতে নিজেদের শক্তির সর্বোচ্চ ব্যবহার করছে চীন। সম্প্রতি সামরিক হুমকির অংশ হিসেবে জলপথে সামরিক মহড়াও চালিয়েছে তারা।

বৃহস্পতিবার টানা দ্বিতীয় দিনের মতো তাইওয়ানের আকাশসীমায় ঢুকে পড়েছে চীনের যুদ্ধবিমান। এই তথ্য নিশ্চিত করে চীনকে আঞ্চলিক শান্তি নষ্ট না করার আহ্বান জানিয়েছে দেশটির প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়। এই ঘটনায় সংবেদনশীল তাইওয়ান প্রণালীতে উত্তেজনা আরও বাড়লো।

তাইওয়ানকে নিজেদের অঞ্চল দাবি করা চীন সম্প্রতি এই দ্বীপটির কাছে ও উপকূলে একাধিক সামরিক মহড়া চালিয়েছে। সর্বশেষ যুদ্ধবিমান প্রবেশ করে দেশটির সার্বভৌমত্ব ঝুঁকির মুখে ফেলেছে।

প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় বলেছে, দ্বিতীয় দিনের মতো সু-৩০ যুদ্ধবিমান ও ওয়াই-৮ পরিবহন বিমান তাইওয়ানের চিহ্নিত আকাশসীমা দিয়ে দক্ষিণ পশ্চিমে ঢুকে পড়েছিল।

আপনার মতামত লিখুন :