ট্রাম্প নমনীয় হলেন টিকটকের বিষয় নিয়ে।

Samia RahmanSamia Rahman
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ০৩:১৩ PM, ০৫ অগাস্ট ২০২০

 

চীনে মোট ছয় হাজার কর্মী রয়েছে মাইক্রোসফটের। অফিস রয়েছে বেইজিং, সাংহাই ও সুঝোউ অঞ্চলে। নাভারো বলছেন, মাইক্রোসফটের বিং সার্চ ইঞ্জিন এবং স্কাইপ প্ল্যাটফর্ম কার্যকরীভাবে চীনা সেন্সরশিপ, নজরদারি ও তথ্য সংগ্রহে সাহায্য করছে।

বেইজিংয়ে মাইক্রোসফটের এক গবেষণা কেন্দ্র রয়েছে। এখান থেকে বের হয়ে আলিবাবা, শাওমি, বাইটড্যান্স ও ফেশিয়াল রিকগনিশন সেনসটাইম, মেগভি’র মতো প্রতিষ্ঠানের নির্বাহী দায়িত্বে রয়েছেন অনেক সাবেক কর্মী।

চীনের মালিকানাধীন সোশ্যাল ভিডিও অ্যাপ টিকটককে মাইক্রোসফট কিনলে কোনো আপত্তি থাকবে না মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের। তবে, তা ১৫ সেপ্টেম্বর সময়সীমার মধ্যে হতে হবে। অবশ্য, শুধু ৩০ শতাংশের চেয়ে মাইক্রোসফট টিকটকের পুরোটা কিনে নিলেই ভালো হতো বলে মন্তব্য করেছেন তিনি।

এদিকে, টিকটক কিনলে চীন থেকে মাইক্রোসফটের ব্যবসা গুটিয়ে আনা প্রয়োজন বলে মনে করছেন হোয়াইট হাউসের বাণিজ্য উপদেষ্টা পিটার নাভারো। তার বক্তব্য, চীনে ব্যবসা রয়েছে এমন কোনো প্রতিষ্ঠান টিকটক কিনতে চাইলে সমস্যায় পড়বে। তবে, ট্রাম্পের কথায় এমন কড়া শর্ত প্রকাশ পায়নি।

এর আগে, গত সপ্তাহে রাষ্ট্রীয় নিরাপত্তা উদ্বেগে যুক্তরাষ্ট্রে টিকটক নিষিদ্ধ করার ঘোষণা দিয়েছিলেন ডোনাল্ড ট্রাম্প।

আপনার মতামত লিখুন :