প্রদীপ কুমার দাশ এর সঙ্গে ফেঁসে গেলেন তার স্ত্রী।

Samia RahmanSamia Rahman
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ০৪:২৭ PM, ২৫ অগাস্ট ২০২০

 

প্রদীপ এবং তার স্ত্রী চুমকি দাশের বিরুদ্ধে ৩ কোটি ৯৫ লাখ ৫ হাজার ৬৩৫ টাকার জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জন ও মানি লন্ডারিংয়ের অভিযোগে মামলা দায়ের করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন ।

তিনি জানান, দুর্নীতি দমন কমিশনের সমন্বিত জেলা কার্যালয়, চট্টগ্রাম-২ এর সহকারী পরিচালক মো. রিয়াজউদ্দিন সংশ্লিষ্টদের বিরুদ্ধে আসা অভিযোগের অনুসন্ধানকারী কর্মকর্তা ছিলেন।

তার অনুসন্ধান প্রতিবেদনের ভিত্তিতে কমিশন টেকনাফ থানার সাবেক অফিসার ইনচার্জ প্রদীপ কুমার দাশ ও তার স্ত্রীচুমকির বিরুদ্ধে মামলা দায়েরের এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

অভিযোগে বলা হয়েছে, তারা ৩ কোটি ৯৫ লাখ ৫ হাজার ৬৩৫ টাকার জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জন করেছেন, যার কোনও উৎস দেখাতে পারেননি।

দুর্নীতি দমন কমিশন আইন, ২০০৪-এর ২৬ ধারা, ২৭ ধারা, মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইন, ২০১২ এর ৪ ধারা, ১৯৪৭ সালের দুর্নীতি প্রতিরোধ আইনের ৫ ধারাসহ দণ্ডবিধির ১০৯ ধারায় চট্টগ্রামে মামলাটি দায়ের করা হবে।

টেকনাফ থানার সাবেক অফিসার ইনচার্জ প্রদীপ কুমার দাশের সঙ্গে ফেঁসে গেলেন তার স্ত্রী। এ তথ্য জানিয়েছেন দুদকের পরিচালক প্রণব কুমার ভট্টাচার্য্য।

আপনার মতামত লিখুন :